শিপ্রাকে নিয়ে সামাজিকমাধ্যমে সমালোচনার ঝড়

  • ডেস্ক
  • শনিবার, ১৫ আগস্ট ২০২০ ০৪:১০:০০

কক্সবাজারের মেরিনড্রাইভে পুলিশের গুলিতে নিহত সাবেক সেনা কর্মকর্তা মেজর সিনহার সহযোগী স্টামফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী শিপ্রা দেবনাথের সাম্প্রতিক কিছু ভিডিও ও ছবি নিয়ে সমালোচনার ঝড় শুরু হয়েছে সামাজিক মাধ্যমে। শিপ্রার বক্তব্যের পক্ষে-বিপক্ষে বিভাজিত হয়ে নানাবিধ মন্তব্য ভাসছে অনলাইনে।

জার্মানিভিত্তিক সংবাদমাধ্যম ডিডব্লিউকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে শিপ্রা দেবনাথ যেভাবে হত্যার প্রসঙ্গ এড়িয়ে গেছেন তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন অনেকে।

শিপ্রা মেজর (অব) সিনহা হত্যার বিচার না চেয়ে ইউটিউব চ্যানেলের সাবস্ক্রাইবার চাইলে- তা নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেন অনেকেই। যদি এ বিষয়ে কোনো কিছু বলারই না থাকে তবে তিনি কেন লাইভে এই বিষয়ে কথা বলতে গেলেন, এমন প্রশ্নেরও অবতারণা ঘটেছে। এছাড়া 'মেজর (অব) সিনহা কীভাবে তার কাছ থেকে ক্যামেরা চালানো শিখেছেন' সেসবের বর্ণনাও এমন পরিস্থিতে সমীচীন হয়নি বলে অনেকে মনে করেন। 

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর ড. আসিফ নজরুল তার ফেসবুক পেইজে একটি স্ট্যাটাসে বলেন, 'মেজর সিনহার হত্যাকাণ্ডের পর শিপ্রা দেবনাথের একটি ভিডিও দেখে হতভম্ব হয়ে গেছি। মনে হয়েছে অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহার হত্যার বিচার না, শিপ্রার আসল চিন্তা ইউটিউব চ্যানেলের উপর নিয়ন্ত্রণ নিয়ে। মেয়েটি সেখানে যেভাবে বলল সিনহা ‘মারা গেছে’ মনে হলো যেন তাকে কেউ হত্যা করেনি, পাহাড়-টাহার থেকে দুর্ঘটনাবশত পড়ে মৃত্যুটি ঘটেছে! তার  সাথে সিনহার যতো অন্তরঙ্গ সম্পর্ক থাকুক না কেন, পাবলিকলি  সে যেভাবে সিনহা, সিনহা বলে তাকে উল্লেখ করেছে তা অত্যন্ত অরুচিকর লেগেছে আমার কাছে। আর এত ঘনিষ্ঠ যদি হয় তাদের সম্পর্ক, তাহলে তার মর্মান্তিক হত্যাকাণ্ডের পর শিপ্রার আচার-আচরণ তো সন্দেহজনক বলতে হবে! পুরো ভিডিওটা দেখে আমি এমন বিরক্ত হয়েছি যে তা বলার মতো না। কি দুর্ভাগ্য, মেজর সিনহা এমন একটা আজব সহকর্মী রেখে গেছেন তার সম্পর্কে বলার জন্য।'

সাবেক সেনা কর্মকর্তা শহীদ খান ফেসবুকে লিখেন, ‘ঘটনার দিন তিনি কেন সিনহার সাথে যাননি? তাকে না যাওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছিল? কেন তিনি মিডিয়াতে সিনহা হত্যার বিচার চাইছেন না, বরং নিজেকে তারকা হতে প্রচার করছেন কেন? সিনহা ছাড়া শিপ্রা কী এবং সে আসলে কে?’

এদিকে শিপ্রার এমন বক্তব্য দেয়ার পরপরই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে শিপ্রার ব্যক্তিগত জীবনের বিভিন্ন সময়ের ছবি ফেসবুকে আপলোড করা হয়। এসব ছবির ক্যাপশন ও কমেন্ট সেকশনে তাকে প্রকাশের অযোগ্য ভাষায় গালিগালাজ করা হয়। এসব পোস্টের কোন কোনটিতে শিপ্রার পোশাক নিয়ে ঋণাত্বক মন্তব্য করা হয়েছে, কোথাও বা তার ধূমপানের ছবি আপলোড করে চলেছে সমালোচনা।  

সূত্র: সময় নিউজ

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

মন্তব্য