অবসর ভেঙে মাঠে ফিরছেন যুবরাজ, খেলবেন পাঞ্জাবের হয়ে

  • অনলাইন
  • বৃহস্পতিবার, ১০ সেপ্টেম্বর ২০২০ ১২:৪২:০০

গত বছর ওয়ানডে বিশ্বকাপ চলাকালীন সব ধরনের ক্রিকেট থেকে অবসর নিয়েছিলেন ভারতের বিশ্বকাপজয়ী তারকা যুবরাজ সিং। দীর্ঘ সময় পর আবারো তার বাইশ গজে ফেরার সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে। শোনা যাচ্ছে, সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে অবসর ভেঙে ক্রিকেট মাঠে ফিরতে চলেছেন যুবরাজ সিং। ঘরোয়া ক্রিকেটে পাঞ্জাবের হয়ে টি-টোয়েন্টি খেলবেন তিনি। বুধবার (০৯ সেপ্টেম্বর) একটি ইংরাজি স্পোর্টস ওয়েবসাইটে একথা জানিয়েছেন যুবরাজ নিজেই।

বর্তমানে ভারতের ঘরোয়া ক্রিকেটে পাঞ্জাবের মেন্টর হিসেবে কাজ করছেন যুবরাজ। সেই থেকেই নাকি নতুন করে অনুপ্রাণিত হয়েছেন তিনি। শোনা যাচ্ছে, পাঞ্জাবের হয়ে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটেই নাকি মন দিতে চান ৩৮ বছরের যুবি। জানা গেছে, পাঞ্জাব ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের (পিসিএ) কাছে চিঠি পাঠিয়েছেন যুবরাজ। নিজের রাজ্যকে টি- টোয়েন্টিতে সাহায্য করতে চান তিনি। যুবরাজের চিঠি এরই মধ্যে পিসিএ-র কাছে পৌঁছেছে। যদিও পিসিএ-র পক্ষ থেকে এখনো তাঁকে কিছু জানানো হয়নি।

গত বছর জুনে তিন ফরম্যাটের ক্রিকেট থেকেই অবসর গ্রহণ করেছিলেন যুবরাজ। তবে ক্রিকেট থেকে বেশিদিন দূরে থাকেননি। বরং পাঞ্জাব ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের অনুরোধে মোহালিতে শুভমন গিল, অভিষেক শর্মা, প্রভসিমরান সিং এবং আনমোলপ্রীত সিংকে নিয়ে দুটি দীর্ঘ ক্যাম্প করেন। চার উঠতি ক্রিকেটারের ফিটনেস ও দক্ষতা নিয়ে কাজ করেন যুবি। বিশেষ জোর দেন মানসিক দৃঢ়তার উপর। সেই সময়েই কিছুটা নিজের অজান্তেই যেন খেলোয়াড়দের দুনিয়ায় ফিরে আসেন ২০১১ সালের বিশ্বকাপের ম্যান অফ দ্য টুর্নামেন্ট। ১৭ বছরের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ক্যারিয়ারে যুবরাজ ৪০টি টেস্ট, ৩০৪ ওয়ান ডে ও ৫৮টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছেন।

যুবরাজ বলেন, 'এই সব তরুণ তুর্কিদের সঙ্গে সময় কাটিয়ে দারুণ লাগছে। খেলার নানা দিক নিয়ে ওদের সঙ্গে আলোচনা করেছি। মনে হয়েছে, ওরা অনেককিছু শিখে নিতে পারবে।' এরপরই বলেন, 'ওদের বিভিন্ন বিষয় বুঝিয়ে দিতে ব্যাট হাতে নেটে নামতেই হয়েছিল। আর নিজের পারফরম্যান্স দেখে নিজেই ঘাবড়ে গেছিলাম। দীর্ঘদিন না খেলেও কী দারুণভাবে মারছিলাম শটগুলো। অফ-সিজন ক্যাম্পেও ব্যাটিং প্র্যাকটিস করেছিলাম। কয়েকটা প্র্যাকটিস ম্যাচে রানও করি। তারই মাঝে পাঞ্জাব ক্রিকেট সংস্থার পুনিত বালি আমায় অনুরোধ জানান অবসর ভেঙে কামব্যাক করতে।'

যুবরাজ স্বীকার করেছেন, বিসিসিআইয়ের অনুমতি পেলে বাইরের দেশের লিগে খেলতে চেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু পাঞ্জাবের প্রস্তাব গ্রহণ করে ঘরোয়া ক্রিকেটে ফিরবেন কি না, প্রথমে বুঝতে পারছিলেন না। প্রায় তিন-চার সপ্তাহ ভাবার পর ইতিবাচক সিদ্ধান্তই নিয়ে ফেলেন। আসলে তরুণদের নিয়ে তৈরি পাঞ্জাব দলকে চ্যাম্পিয়ন হিসেবে দেখতে চান যুবি। সেই জন্যই ফেরার সিদ্ধান্ত।

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

মন্তব্য