সুন্দরগঞ্জে মুসল্লিদের ওপর হেফাজতকর্মীদের হামলার অভিযোগ

  • গাইবান্ধা প্রতিনিধি
  • শনিবার, ১০ এপ্রিল ২০২১ ০৫:১৫:০০

গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জের ছিলামনির বাজারে একটি মসজিদে জুমার নামাজ শেষে মুসল্লিদের ওপর হেফাজতকর্মীরা হামলা চালিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।
শুক্রবার (৯ এপ্রিল) জুমার নামোজের পর ওই মসজিদে হামলার ঘটনা ঘটে। এতে ১৪ জন আহত হয়েছেন।
তবে মুসল্লিরা এ ঘটনাকে হেফাজতের তাণ্ডব বললেও পুলিশ তা অস্বীকার করেছে। 

ছিলামনি মসজিদের ইমাম ক্বারী মতলব উদ্দিন বলেন, ‘ছিলামনি বাজারের পাশের বাড়ির দুলা মিয়া, খুশি মিয়া, মিঠু, তোতা ও খোকা মিয়াসহ কয়েকজন দীর্ঘদিন ধরে হেফাজতে ইসলামের নামে বিভিন্ন কাজ করে আসছে। আজ জুমার নামাজের পর দেশিয় অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে তারা আমার হাত থেকে মাইক কেড়ে নিয়ে হেফাজতের কথা বলতে শুরু করে। এসময় মুসল্লীরা বাধা দিলে ৮/১০ জনের একটি হেফাজত কর্মীর দল মুসল্লিদের বেধড়ক মারপিট করে।’ 

তিনি জানান, এ ঘটনায় নীল মিয়া, হাবিজার, মন্টু মেম্বর, দুলা মিয়া, রাজ্জাক ও আসাদুজ্জামান তোতাসহ ১২ জন আহত হয়। আহতরা গাইবান্ধা জেলা হাসপাতালসহ বিভিন্ন স্থানে চিকিৎসা নিচ্ছে। ঘটনার পর পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। 

এ ব্যাপারে সুন্দরগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে বলে জানান তিনি। 
সুন্দরগঞ্জ থানার ওসি (তদন্ত) বুলবুল ইসলাম বলেন, ‘এটি হেফাজতের হামলা নয়। মসজিদ কমিটি নিয়ে দ্বন্দ্বের জের ধরে এ ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেছে।’

সংশ্লিষ্ট সংবাদ

মন্তব্য